নারকেল তেলের ১৪টি ব্যবহার যা আপনার নাও জানা থাকতে পারে
লিখেছেন প্রশান্ত চিত্ত, জুন ১৭, ২০১৪ ১১:১৯ অপরাহ্ণ

নারকেল তেল এক দারুণ প্রাকৃতিক উপাদান। চুলের যত্নে এই তেলের ব্যাপক ব্যবহার হলেও এর আরো অনেক ব্যবহার রয়েছে যার সম্পর্কে আমার তেমন কিছু জানি না। নিউ ইয়র্কের দ্য মাউন্ট সিনাই হসপিটালের প্লাস্টিক সার্জন স্ট্যাফোর্ড ব্রোমান্ড বলেন, নারকেল তেলের ভিটামিন ‘ই’ এবং অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল উপাদান রয়েছে যা ত্বকের নানা সমস্যা দূর করতে পারে। তা ছাড়া নারকেল তেলে মধ্যমানের চেইন ফ্যাটি এসিড থাকে। রান্নায় নারকেল তেল ব্যবহার করলে তা দারুণ একটি মিষ্টি স্বাদ আসে। এখানে নারকেল তেলের ১৪টি ব্যবহারের কথা জানানো হলো।

১. সকালে নাস্তার সঙ্গে অ্যাভোকাডোর স্বাদ যদি কিছুটা বিস্বাদ লাগে তাহলে তাতে একটু নারকেল তেল লাগিয়ে নিন। খেতে ভালো লাগে।

২. ট্রপিক্যাল কলা বা আমন্ড দুধের সঙ্গে এক চামচ নারকেল তেল মিশিয়ে নিলে তাতে ভিটামিন ‘ই’ যোগ হবে।

৩. রাতে এক গামলা পপকর্ন নিয়ে বসেছেন সিনেমা দেখতে? তাতে একটু নারকেল তেল ছড়িয়ে নিন। এর স্বাদটা ক্রিমি হয়ে যাবে এবং একটা মিষ্টি ভাবও আসবে।

৪. টাটকা সবুজ শাক-সবজিতে সামান্য পরিমাণ নারকেল তেল ব্যবহার করুন। এর স্বাদ ভোলার মতো নয়।

৫. চুলের যত্নে এই তেলের ব্যবহার আমাদের দেশে চলে আসছে বহুকাল ধরে। এর ভিটামিন ‘ই’ চুলকে করে মসৃণ এবং চুল ঝরে যাওয়াও রোধ করে।

৬. কফি পানে যে চাঙ্গা ভাব চলে আসে তার মাত্রা বহুগুণ বাড়িয়ে দিতে তাতে একটু নারকেল তেল দিয়ে দিন। কফির গুণ আরো বাড়াতে এই দারুণ পদ্ধতি ব্যবহারের পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা।

৭. দুই আঙুলের মাঝে একটু নারকেল তেল নিয়ে আলতো করে ঘষে গরম করে নিন। তার পর তা ব্যবহার করুন চোখের পাতা আর ভ্রুতে। সেখানে চিকচিকে ভাব চলে আসবে।

৮. পেট ও থাইয়ে নারকেল তেল সকাল ও রাতে শোয়ার আগে ব্যবহার করলে ফাটা ফাটা দাগগুলো চলে যায়।

৯. বাথটবে গোসলের আগে কয়েক চামচ নারকেল তেল ঢেলে দিলে গোসলের পর ত্বকে এক মসৃণ ভাব চলে আসবে।

১০. শিশুদের দেহের বিভিন্ন অংশে চুলকানি বা ঘামাচি হলে সেখানে নারকেল তেল ঘষে দিন। ত্বক আরো মসৃণ হবে এবং র‍্যাশ চলে যাবে।

১১. নখের বাইরে ও ভেতরের দিকে নারকেল তেল নিয়ে ধীরে ধীরে ম্যাসাজ করুন। নখের সৌন্দর্য বেড়ে যাবে। নখও হবে সুস্থ-সবল।

১২. ভিটামিন ‘ই’ সমৃদ্ধ লোশন হিসেবে জমে যাওয়া নারকেল তেল ব্যবহার করতে পারেন। এটি ত্বকের দারুণ ময়েশচার হিসেবে কাজ করে।

১৩. একজিমার মতো চুলকানির অংশে নারকেল তেল মালিশ করলে তা প্রাকৃতিক ময়েশচারের কাজ করে। চুলকানির যন্ত্রণা থেকে অনেকটা মুক্তি পাবেন।

১৪. অনেক গবেষণায় দেখা গেছে, মাউথ ওয়াশের মতো মুখে সামান্য নারকেল তেল ব্যবহার করলে তা মুখের ভেতরটাকে সুস্থ রাখে।

সূত্র : কালের কণ্ঠ অনলাইন, ইন্টারনেট।

পোস্টটি ১১৯৬ বার পঠিত
 ১ টি লাইক
২ টি মন্তব্য
২ টি মন্তব্য করা হয়েছে
  1. নারিকেল তেলের এত গুন জানতামনা :/ । তবে খালি নারিকেল খেতে ভালা পাই …

আপনার মুল্যবান মন্তব্য করুন

Your email address will not be published.