বাক্সবন্দী সময়
লিখেছেন অনবরত বৃক্ষের গান, অক্টোবর ১৯, ২০১৭ ৪:৫৬ পূর্বাহ্ণ
FB_IMG_1508519010709

বাক্সবন্দী সময়
ক্লাস থেকে ফিরে পিঠের ব্যাগটা টেবিলে রেখেই,টেবিল ফ্যানটা ছেড়ে বসে তানহা।ওয়াটার বোতলটা হাতে নেয়,একটু পানি নেই,ক্লান্তিতে পানি না খেয়েই এলিয়ে পড়ে বিছানায়।হঠাৎ কি খেয়ালে ব্যাগে ফোনটা খুঁজতে গিয়ে বিপত্তি,কই কোন পকেটেই তার প্রিয় ফোনটা নেই।ইউনি’ বাস থেকে নামার সময়ই হয়তো, অসর্তকতায় ফোনটা হারিয়েছে।মনটা বিষন্ন হয়ে যায় ওর,অবসরে Facebook,Youtube-এ কাটিয়ে দিতো।ফেইজবুকে তার ফলোয়ারও কম না,সবাই কত্তোশতো কমেন্ট, আড্ডা,চ্যাট।কথা চালানোর মতো একটা হ্যান্ডসেট থাকলেও মাস-তিনেকের আগে,নতুন অ্যানড্রেন্ড কেনা সম্ভব হবে না।এমনিতেই তানহার আম্মা কতো কষ্ট করে, ওর জন্য টাকা পাঠান,ছোট্ট একটা চাকুরী টিউশনি, কোচিং করিয়ে। এরমধ্যে আবার ফোন কিনতে কোনমুখে টাকা চাইবে।তারউপর গত সেমিস্টারে রেজাল্ট খারাপ করেছে।এট পিছনে অবশ্য ওর, অনিয়ন্ত্রিত চলাফেরা, Youtube আসক্তি,দেরীতে ঘুমানো,ক্লাসে অমনোযোগীতাই দায়ী।সারাদিন Instagram-এ কোন ছবিটা দিবে,কোন পোষ্টটা করলে লাইকের ঝড় বইবে,এসব মাথায় ঘুরপাক খেতো সারাদিন।

আসরের নামাজ পড়ে,একটা বই নিয়ে বসলো তানহা।না বই পড়ায় মন বসাতে পারলো না।কেমন চারপাশ শূন্য মনে হতে থাকলো।আজ অনেকদিন পর সে আবিষ্কার করলো, কতোটা নিঃসঙ্গ সে।বাড়িতে কতোদিন ফোনে ঠিকমতো কথা বলেনি সময় নিয়ে।ছোট্ট ভাইটার সাথে গল্প করা হয়নি,দাদু ভাইয়ের জ্বরটা কমলো কি না,তাও জানে না সে।নিজেকে কেমন স্বার্থপর মনে হয়,শৈশবের প্রিয় মানুষটার সাথে ঘনিষ্ঠতা কতোটা কমে গেছে!কি ভেবে ফোনটা হাতে নেয়,বাড়িতে ফোন দেয়,আম্মার সাথে দীর্ঘক্ষণ কথা বলে,দাদুভাইয়ের খোঁজ নেয়।ছোট্ট ভাইয়ের সাথে গল্প করে।মনটা হঠাৎ কেমন অজানা, তৃপ্তিতে ভরে উঠে তানহার।

সেদিন সন্ধ্যায় তানহা রিডিং রুমে পড়তে গেলো,এশার সালাতের পর বেশ কিছুক্ষণ কুরআন পড়লো,অর্থ বুঝে বুঝে।অবাক হয়ে দেখলো,তার এতোটা প্রশান্তি লাগছে, শুধু পড়তেই ইচ্ছা করছে।প্রিয় কিছু আয়াত ডায়েরীতে লিখলো সে।এখন আর ওর একা লাগছে না,কেমন যেন নিশ্চিন্ত পরমনির্ভরতা স্রষ্টার উপর। তানহা আরো খেয়াল করলো,আজকে বাকীটা সময় বেশ ভালোই গিয়েছে,হলে খাবারের জন্য সিরিয়ালে দাড়াতে হয়নি,গিয়েই পেয়েছে,লিফটেও তেমনি।সবকাজগুলো যেন সহজেই হয়ে গেলো আজ।সারাদিনে তার উপলব্ধি হলো এতোদিন সে,কি অনর্থক শূন্যতা নিয়ে পড়ে ছিলো,কি মিথ্যা, মোহময় ভারচুয়ালিটি,বাক্সবন্দী হয়ে আছে চারপাশ।কখন চোখ খুলে তাকাবে সবাই….
সময়:৪.০০টা
১৮-১০-১৭

 

 

পোস্টটি ১৪৯ বার পঠিত
 ৩ টি লাইক
১ টি মন্তব্য

Leave a Reply

1 Comment on "বাক্সবন্দী সময়"

Notify of
avatar
Sort by:   newest | oldest | most voted
রৌদ্রের গান
Member

সময়োপযোগী লেখা…

wpDiscuz